নেপালে ভূমিধসে ১৭ জনের মৃত্যু, নিখোঁজ ১০

গত কয়েকদিনের তুমুল বর্ষণ ও তার ফলে সৃষ্ট ভূমিধসে নেপালে অন্তত ১৭ জনের মৃত্যু হয়েছে এবং এখন পর্যন্ত নিখোঁজ আছেন আরও ১০ জন। এছাড়া আহত অবস্থায় হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে ১১ জনকে। চীনের তিব্বত-নেপাল সীমান্তঘেঁষা সুদূরপশ্চিম প্রদেশের আচ্ছাম জেলায় শনিবার ঘটেছে এ ঘটনা।

 

 রয়টার্স ও ভারতের বার্তাসংস্থা প্রেস ট্রাস্ট অব ইন্ডিয়ার তথ্য অনুযায়ী গত কয়েকদিন ধরে প্রবল বর্ষণ ও পাহাড়ি ঢলের জেরে ইতোমধ্যেই আচ্ছাম জেলার অধিকাংশ এলাকায় বন্যা শুরু হয়েছে। রাজধানী কাঠমান্ডু থেকে আচ্ছামের দূরত্ব প্রায় ৪৫০ কিলোমিটার।

 

ভূমিধস উপদ্রুত এলাকায় উদ্ধার অভিযান চলছে বলে পিটিআইকে নিশ্চিত করেছেন আচ্ছাম জেলা প্রশাসনের শীর্ষ নির্বাহী কর্মকর্তা দীপেশ রিজাল। এছাড়া আহতদের পার্শ্ববর্তী সুরখেত জেলার হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে বলেও জানিয়েছেন তিনি।

 

জেলা প্রশাসনের কর্মকর্তারা জানিয়েছেন, হতাহত ও নিখোঁজের সংখ্যা আরও বাড়তে পারে। কারণ বন্যার কারণে সুদূরপশ্চিম প্রদেশভুক্ত ৭টি জেলার সংযোগকারী অধিকাংশ সড়ক-মহাসড়কের ব্যাপক ক্ষয়ক্ষতি হয়েছে। ফলে উদ্ধার তৎপরতায় কাঙ্ক্ষিত গতি আনা সম্ভব হচ্ছে না।

 

সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে ছড়িয়ে পড়া বিভিন্ন ছবি ও ভিডিও ফুটেজে দেখা গেছে, ভূমিধসের ফলে সৃষ্ট ধ্বংসস্তুপে কেউ আটকা পড়েছেন কিনা- নিশ্চিত হতে পুলিশ ও সরকারি উদ্ধারকর্মীদের সঙ্গে মরিয়া অভিযানে নেমেছেন সাধারণ লোকজনও।

 

‘হিমালয় কন্যা’ বলে পরিচিত দেশ নেপালে বর্ষা মৌসুমে আকস্মিক বন্যা ও ভূমিধস একপ্রকার নিয়মিত প্রাকৃতিক দুর্যোগ। প্রতি বছরই জুন থেকে সেপ্টেম্বরে নেপালের কোনো না কোনো অঞ্চলে এই দুর্যোগ দেখা দেয়। চলতি বর্ষা মৌসুমে আকস্মিক বন্যা ও ভূমিধসে নেপালজুড়ে এ পর্যন্ত মারা গেছেন মোট ৪৮ জন, এবং নিখোঁজ হয়েছেন ১২ জন।

 

পুনরুত্থান /টিএম

Comments: