চট্টগ্রাম দক্ষিণ জেলা আওয়ামী লীগের সম্মেলন সেপ্টেম্বরে

চট্টগ্রাম দক্ষিণ জেলা আওয়ামী লীগের সম্মেলন সেপ্টেম্বরের প্রথম সপ্তাহে করার ঘোষণা দিয়েছেন আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক মাহবুব উল আলম হানিফ।

 

শনিবার (১৪ মে) দুপুরে চট্টগ্রামের একটি কনভেনশন সেন্টারে দক্ষিণ জেলা আওয়ামী লীগের তৃণমূল প্রতিনিধি সভায় বক্তব্য দেওয়ার সময় তিনি এ ঘোষণা দেন। হানিফ বলেন, দক্ষিণ জেলার সব ওয়ার্ড ইউনিয়ন ও উপজেলার সম্মেলন জুন থেকে জুলাইয়ের মধ্যে শেষ করব। এরপর সেপ্টেম্বরের প্রথম সপ্তাহে জেলা সম্মেলন করতে চাই। হানিফ আরও বলেন, বিএনপি দিবাস্বপ্ন দেখছে। তারা বলছে, বাংলাদেশের অবস্থা  শ্রীলঙ্কার মতন হবে। আমি বলছি, বাংলাদেশ কখনো শ্রীলঙ্কা হবে না। বাংলাদেশের কৃষিখাত শক্তিশালী হয়েছে। রপ্তানি আয় বেড়েছে। প্রবৃদ্ধি বেড়েছে। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে আমরা এগিয়ে যাচ্ছি। এখানে অর্থনৈতিক সংকট হবে না।

 

প্রধান অতিথির বক্তব্যে আওয়ামী লীগের প্রেসিডিয়াম সদস্য সাবেক মন্ত্রী ইঞ্জিনিয়ার মোশাররফ হোসেন বলেন, চট্টগ্রামের দক্ষিণ জেলার যে আসনগুলো আছে আগামী সংসদ নির্বাচনে মাননীয় প্রধানমন্ত্রী যাকেই মনোনয়ন দেক না কেন তাকেই আপনারা ভোট দিয়ে জয়যুক্ত করবেন। এটা আমার অনুরোধ। জয়যুক্ত করে আনতে পারবেন তখনই যখন আপনারা তৃণমূলকে সংগঠিত করতে পারবেন। তখন আপনারা তৃণমূল পর্যায়ে দৃঢ়তার সহিত জয় পাবেন। ইঞ্জিনিয়ার মোশাররফ বলেন, প্রতিটি ইউনিয়ন পরিষদে আওয়ামী লীগের শক্তিশালী কমিটি করবেন। যারা ছাত্রলীগ আছে, যুবলীগ আছে তাদেরকেও বলবেন। যখন আসবে যাকেই মনোনয়ন দেওয়া হোক না কেন তাকে নিয়ে আপনারা ঘরে ঘরে যাবেন, আদবের সহিত ভোট চাইবেন। আপনারা যদি আদবের সহিত ভোট চান আপনারা ভোট পাবেন।

 

তিনি বলেন, আমি আমার এলাকায় ৯ বার নির্বাচন করছি, সাতবার এমপি হইছি আরও দুইবার হইতাম। হই নাই বিভিন্ন কারণে। তাই আজকে বলতে চাই ভোটে জেতার একমাত্র কৌশল হলো— আমরা সম্মান ও আদবের সহিত মা-বোনের কাছে গিয়ে আমাদের ভোট চাওয়া। আমরা অনেক কাজ করেছি। যারা গৃহহীন তাদের ঘর দিয়েছি। আজকে সারা বাংলাদেশ আলোকিত হয়েছে কার অবদান? শেখ হাসিনার অবদান। আমি শুধু বলবো আপনাদের মেসেজ দেওয়ার জন্য যে আপনারা প্রতিটি ওয়ার্ডে আওয়ামী লীগের শক্তিশালী কমিটি গঠন করবেন। আপনারা ছাত্রলীগকে শক্তিশালী করবেন।

 

মোশাররফ বলেন, আমি এটা বিশ্বাস করি যে ইউনিয়নে আওয়ামী লীগের কর্মী আছে, বঙ্গবন্ধুর কর্মী আছে, সেখানে আওয়ামী লীগের কোনো প্রার্থীকে পরাজিত করা সম্ভব হবে না। তাই আমার বিশ্বাস আপনারা একমাসের মধ্যে ওয়ার্ড কমিটি, থানা কমিটি ও ইউনিয়ন কমিটি গঠন করবেন। বিশেষ বক্তা হিসেবে বক্তব্য দেন আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক ও হুইপ আবু সাঈদ আল মাহমুদ স্বপন। তিনি বলেন, জুলাইয়ের মধ্যে তৃণমূলের সম্মেলন শেষ করতে হবে। সেপ্টেম্বরের প্রথম সপ্তাহে আমরা জেলা সম্মেলন করব।

 

তৃণমূলের নেতাকর্মীদের ঐক্যবদ্ধ ও উজ্জীবিত করতে প্রতিনিধি সম্মেলনের আয়োজন করেছে চট্টগ্রাম দক্ষিণ জেলা আওয়ামী লীগ। এতে দক্ষিণ জেলা আওয়ামী লীগের আওতাধীন ৮টি উপজেলার প্রায় ৩ হাজার নেতাকর্মী ও নৌকা প্রতীকে নির্বাচিত জনপ্রতিনিধিরা এ প্রতিনিধি সভায় অংশ নিয়েছেন। সভায় অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন শিক্ষা উপমন্ত্রী মহিবুল হাসান চৌধুরী, আওয়ামী লীগের অর্থ ও পরিকল্পনা সম্পাদক ওয়াসিকা আয়েশা খান, সংসদ সদস্য নজরুল ইসলাম চৌধুরী, সংসদ সদস্য মোস্তাফিজুর রহমান চৌধুরী, ধর্মবিষয়ক সম্পাদক সিরাজুল মোস্তফা।

Comments: