১৪০০ কোটি টাকার দেম্বেলেকে পানির দামে বেচে দেবে বার্সেলোনা!

Publish: 4 months ago ( 1345)

স্পোর্টস ডেস্ক

বার্সেলোনার সঙ্গে উসমান দেম্বেলের আলোচনা কোনোভাবেই আলোর মুখ দেখছে না। ফরাসি ফরোয়ার্ডের চাওয়া বড় অঙ্কের বেতন, কিন্তু বার্সা কোনোভাবেই তা দিতে রাজি নয়। বনিবনা না হওয়ার শুরু সেখান থেকেই। এরপর থেকে নতুন কোনো চুক্তি নিয়ে আলোচনা আর এগোয়নি।

 

এবার বার্সা কোচ জাভি তাকে আলটিমেটামই দিয়ে বসলেন। বললেন, নতুন চুক্তি সই করো, নাহয় জানুয়ারিতেই বেচে দেওয়া হবে তাকে। ২০১৭ সালে বরুসিয়া ডর্টমুন্ড থেকে প্রায় ১৪০০ কোটি টাকা খরচ করে তাকে দলে ভিড়িয়েছিল বার্সেলোনা। সেই চুক্তির মেয়াদ ছিল ২০২২ সাল পর্যন্ত, সেই সময় খুব কাছাকাছি চলে এসেছে, আর পাঁচ মাস পরই তিনি ‘ফ্রি এজেন্ট’ হয়ে যাবেন।  নতুন চুক্তি করতে হবে, নাহয় তিনি ফ্রি এজেন্ট হয়ে যোগ দেবেন অন্য কোনো ক্লাবে। এমন পরিস্থিতিতে ফরাসি বিশ্বকাপজয়ী এই ফরোয়ার্ড বার্সার কাছে বড় অঙ্কের বেতন চেয়ে বসেছেন।

 

স্প্যানিশ সংবাদ মাধ্যম বলছে অর্থের অঙ্কটা প্রতি মৌসুমে প্রায় ৪০০ কোটি টাকার কাছাকাছি। তবে বার্সেলোনায় শেষ সাড়ে চার বছরে একটা বড় সময় ধরেই চোট নিয়ে মাঠের বাইরে ছিলেন তিনি। সে কারণেই তাকে বড় অঙ্কের অর্থ প্রতি মৌসুমে দিতে রাজি নয় কাতালানরা। অচলাবস্থাটা তৈরি হয়েছে সেখানেই। এবার বার্সেলোনা কোচ জাভি হার্নান্দেজ সে পরিস্থিতি থেকে বেরিয়ে আসতে দেম্বেলেকে সময় বেধে দিয়েছেন। সম্প্রতি এক সংবাদ সম্মেলনে তিনি বলেছেন, ‘বার্তাটা (তার প্রতি) পরিষ্কার। উসমান দেম্বেলেকে নতুন চুক্তিতে সই করতে হবে, নাহয় তাকে চলতি মাসেই বিক্রি করে দেওয়ার উপায় খুঁজব আমরা। এর বাইরে আর কোনো পথ খোলা নেই আমাদের সামনে।’

 

তবে সিদ্ধান্তটা যে জাভির একার নয়, সে বিষয়টাও পরিষ্কার বুঝিয়ে দিলেন তিনি। বললেন, ‘আমি যা বলতে পারি তা হলো, আমাদের একটা কঠিন সিদ্ধান্ত নিতে হচ্ছে। সে যদি চুক্তি নবায়ন না করে তাহলে ক্লাবের সিদ্ধান্ত যে তাকে নিয়ে একটা সিদ্ধান্ত নিয়ে ফেলবে। আমরা অনেক দিন ধরে অপেক্ষা করছি। তার সঙ্গে আমরা শেষ পাঁচ মাস ধরে আমরা কথা বলছি। এখন হয় সে চুক্তি নবায়ন করবে, নাহয় আমরা একটা সমাধান খুঁজব।’ দেম্বেলে এই মৌসুমে বার্সেলোনার হয়ে খেলেছেন ১১ ম্যাচ। তার মধ্যে কেবল এক ম্যাচে পেয়েছেন গোল, অ্যাসিস্ট করেছেন দুটো। তবু গেল অক্টোবরে জাভি বার্সেলোনার কোচ হয়ে আসার পর থেকেই তার পরিকল্পনায় দারুণ বড় ভূমিকা ছিল দেম্বেলের। সে কারণেই তাকে ছেড়ে দেওয়ার এ সিদ্ধান্তটাকে ‘কঠিন’ বলেই আখ্যা দিলেন জাভি। বললেন, ‘আমি তার বিষয়ে সবসময়ই সৎ থেকেছি। এটা মোটেও সহজ সমাধান নয়।

 

সব, নাহয় কিছু না। আমাদের খারাপ লাগছে। তবে এখানে ক্লাবই সবার ওপরে। তাকে বসিয়ে রাখার বিষয়ে মোটেও ভাবা হচ্ছে না। উসমানের সঙ্গে আমি এ বিষয়ে বেশ পরিষ্কার।’ তবে বার্সেলোনা তাকে চলতি জানুয়ারিতে বেচে দিলেও যে বড় অঙ্কের অর্থ পাবে, বিষয়টা তেমনও নয়। ট্রান্সফারমার্কেট জানাচ্ছে, বর্তমানে তার বাজারদর মোটেও ৩০০ কোটি টাকার বেশি নয়। ১৪০০ কোটি টাকার বেশি খরচ করে দেম্বেলেকে এখন এই দামের কাছাকাছি অঙ্কেই বিক্রির কথা ভাবছে বার্সা। তবে সেটাও কাতালানদের জন্য সহজ হবে না। আর আধ মৌসুম পরই যে তার চুক্তি শেষ বার্সার সঙ্গে! পাঁচ মাস পরই যাকে মিলবে বিনা মূল্যে, তাকে কোন বড় ক্লাব এখন অর্থ খরচ করে কিনতে চাইবে? সঙ্গে যোগ করুন তার বিশাল বেতনকে, এতবড় অর্থ প্রতি মৌসুমেই খরচ করাটা ইউরোপের মাঝারি সারির দলগুলোর জন্য কঠিনই বটে। ফলে সব মিলিয়ে বার্সেলোনার জন্য দেম্বেলের পরিস্থিতিটা ক্রমেই জটিলতরই হচ্ছে বৈকি!

 

 

পুনরুত্থান/আরিফা/সাকিব/দয়া

Comments: